Money exchange (money converter) Paypal to bkash and more

অনলাইনে আমরা যারা আউটসোর্সিং করি বা ফ্রিল্যান্সিং জগতের সাথে পরিচিত তারা অবশ্যই একটি ইন্টারন্যাশনাল কারেন্সির সাথে পরিচিত আছেন তা হচ্ছে ইউএস ডলার।

বিদেশী কোন সাইট বা মার্কেটপ্লেসে কাজ করলে তারা তোও আর আপনাকে বাংলাদেশী টাকায় পেমেন্ট করবেনা পেমেন্ট গ্রহণ করতে আপনার অবশ্যই একটি ডিজিটাল ওয়ালেট লাগবে।

ডিজিটাল ওয়ালেটের মধ্যে জনপ্রিয় হচ্ছে  স্ক্রিল, নেটেলার, পেওনিয়ার, পেজা, ওয়েবমানির মতো সাইট গুলো।

ক্লায়েন্ট বা যেকোন মার্কেটপ্লেসে কাজ করলে ওরা আপনাকে এসব ওয়ালেটে পেমেন্ট দিয়ে থাকে তাহলে আমরা এসব পেমেন্ট উইদড্র করবো কিভাবে তা নিয়ে একটি প্রশ্ন থেকেই যায়! তবে আমরা চাইলে এসব ডিজিটাল ওয়ালেট থেকে ডলার গুলো ব্যাংক একাউন্ট বা ক্রেডিট কার্ডে নিয়ে নিতে পারি তবে তা সবার জন্য সহজ নয় বটে!

তবে আমরা  অনলাইনে  ডলার গুলো exchange করে বাংলাদেশী টাকা নিতে পারি। তবে যেহেতু তৃতীয় পক্ষ যেহেতু সেখানে প্রতারিত হওয়ার আশংকা ও থাকে তবে তাহলে আমরা বুঝবো কি করে অনলাইনে যারা মানি এক্সচেঞ্জ করে তাদেরকে কতটুকুই বা বিশ্বাস করা যায়?

তবে হ্যা আমরা ওদের সমন্ধে যাচাই করে নিতে পারি ওদের সার্ভিস গুলো সম্পর্কে কাস্টমার রিভিউ দেখতে পারি

তাছাড়া তাদের কন্টাক্ট ইনফরমেশন, অফিস এড্রেস এগুলো সব ভ্যালিড কিনা তাও যাচাই করে দেখতে পারি।

https://www.youtube.com/watch?v=sDEylX3AAyw

Leave a Comment